সূত্রের খবর, পশ্চিমবঙ্গ থেকে লোকসভা নির্বাচনে লড়তে পারেন অমিত শাহ

কলকাতা জেলার খবর রাজনীতি

লোকসভা ভোটের প্রস্তুতিতে রাজ্যে ভ্রমণ বাড়িয়েছেন দিল্লি বিজেপি নেতারা। অমিত শাহ থেকে জেপি নাড্ডার মতো নেতারাও গত কয়েক মাসে একাধিকবার পশ্চিমবঙ্গ সফর করেছেন। ইতিমধ্যেই রাজ্যে ৩৫টি আসনের লক্ষ্য নির্ধারণ করেছেন অমিত শাহ।বিজেপি সূত্রে খবর, আসন্ন লোকসভা নির্বাচনে পশ্চিমবঙ্গ থেকে নির্বাচনে লড়তে পারেন কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী। তাই রাজ্যে নির্বাচনের প্রস্তুতিতে কোনও ফাঁক রাখতে চান না নাড্ডা থেকে শাহ।

Thank you for reading this post, don't forget to subscribe!

গত অক্টোবরে অমিত শাহ কলকাতার লেবুতলা পার্কে রাম মন্দিরের আদলে দুর্গাপূজা উদ্বোধন করতে ঝটিকা সফরে এসেছিলেন। এরপর শাহ ২৯ নভেম্বর ধর্মতলার ডোরিনা ক্রসিংয়ে বৈঠক করেন। এরপর ২৫ ডিসেম্বর রাতে শাহ কলকাতায় ফিরে আসেন। তিনি দলীয় নেতা-কর্মীদের নিয়ে বৈঠক করেন। এর পর ২৮ জানুয়ারি কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রীর পশ্চিমবঙ্গ সফরের কথা ছিল। পূর্ব মেদিনীপুরের মেচেদায় বিজেপির একটি কর্মশালা করার কথা ছিল তাঁর। কিন্তু বিহারের রাজনৈতিক পরিস্থিতির কারণে শেষ মুহূর্তে সফর বাতিল করেন তিনি। শাহের ঘন ঘন সফরের পিছনে কারণ সম্পর্কে বিজেপি সূত্রের কিছু অনুমান ছিল।

সূত্রের খবর, আসন্ন লোকসভা নির্বাচনে পশ্চিমবঙ্গ থেকে নির্বাচনে লড়তে পারেন অমিত শাহ। সম্ভবত তিনি উত্তরবঙ্গের একটি আসন থেকে মনোনয়ন উপস্থাপন করতে পারেন। রাজ্যে গেরুয়া ঝড় তুলতে বিজেপি এই কৌশল নিয়েছে বলে জানা গেছে। বিজেপি সূত্রে জানা গেছে, নরেন্দ্র মোদি তার নিজ রাজ্য গুজরাট ছেড়ে বারানসী থেকে লোকসভা ২০১৯  থেকে প্রতিদ্বন্দ্বিতা করার জন্য  বিজেপির শীর্ষ নেতৃত্ব মনে করছেন, নির্বাচনে উত্তরপ্রদেশ থেকে বিজেপি ব্যাপক সাফল্য পেয়েছে, এবং পশ্চিমবঙ্গ থেকেও অনেক আসনে জয়ের সম্ভাবনা রয়েছে। তাই শাহ পশ্চিমবঙ্গের পাশাপাশি গান্ধীনগরের একটি আসন থেকে প্রতিদ্বন্দ্বিতা করতে পারেন।

২০১৪  সালে, নরেন্দ্র মোদি প্রথমবারের মতো লোকসভা নির্বাচনে তার নিজ রাজ্য গুজরাটের ভাদোদরা ছাড়াও উত্তরপ্রদেশের বারাণসী থেকে প্রতিদ্বন্দ্বিতা করেছিলেন। দুটি আসনেই জয়ী হয়েছেন তিনি। পরে ভাদোদরা আসন ছেড়ে দেন মোদি। সেই বছর উত্তর প্রদেশে বিজেপি ৭১টি আসন জিতেছিল। যেখানে তারা ২০০৯ সালের লোকসভা নির্বাচনে উত্তরপ্রদেশে মাত্র ৯টি আসন পেয়েছিল।

বিজেপি সূত্রের আরও খবর, রাম মন্দির উদ্বোধনের পর বিজেপি উত্তর ভারত ও গোবলায় অপ্রতিরোধ্য হয়ে উঠেছে বলে মনে করছেন দলের নেতৃত্ব। তাই এখন দাক্ষিণাত্য রাজ্যগুলিতে নজর দিতে চাইছেন বিজেপি নেতারা। সেই লক্ষ্যে ঝাঁপিয়ে পড়তে বারাণসী ছাড়াও দাক্ষিণাত্যের যেকোনো আসন থেকে প্রতিদ্বন্দ্বিতা করতে পারেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি। যেখানে বিজেপি এখনও ততটা শক্তিশালী নয়।

স্বস্তিক বাংলা সংবাদ, সময়ের আগে সততার সাথে। দেশ ও পশ্চিমবঙ্গের প্রতিমুহূর্তের রাজনৈতিক, সামাজিক ও সংস্কৃতির দৈনিক খবর সম্পর্কে সম্পূর্ণ ওয়াকিবহাল থাকার জন্য ও আজকের সংবাদের জন্য স্বস্তিক বাংলা খবর, বাংলা ভাষায় বাংলা খবরের একমাত্র নির্ভরযোগ্য বাংলা সমাচারের মাধ্যম স্বস্তিক বাংলা নিউজ পোর্টাল, চোখ রাখুন স্বস্তিক বাংলার পর্দায় এবং সাবস্ক্রাইব করুন স্বস্তিক বাংলার ইউটিউব চ্যানেলটি এবং স্বস্তিক বাংলার ফেসবুক পেজটি কে লাইক শেয়ার ও ফলো করুন ।

Swastik Bangla News, somoyer age sototar sathe. To be fully aware of daily political, social and cultural news of the country and West Bengal and for today’s news Swastik Bangla Sangbad, the only reliable Bangla news medium of Bangla Khobor in Bengali language, keep an eye on Swastik Bangla News Portal, Swastik Bangla Screen and subscribe to Swastik Bangla YouTube Channel And like, share and follow Swastik Bangla’s Facebook page.

https://www.facebook.com/Swastik-Bangla-106535301726361

https://www.youtube.com/@SWASTIKBANGLANEWS/videos

https://www.instagram.com/swastikbangla/

https://www.swastikbangla.com

https://news.google.com/publications/CAAqBwgKMLCBzAsw4JzjAw?ceid=IN:en&oc=3&hl=en-IN&gl=IN

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *